Select your Top Menu from wp menus
সোমবার, ২৩শে অক্টোবর ২০১৭ ইং ।। সকাল ১০:২২

ব্রাজিল-চিলি ম্যাচের নানান জল্পনা কল্পনা

রায়হান কবির,স্বদেশ নিউজ ২৪.কমঃ আসছে বুধবার ভোরে বিশ্বকাপ বাছাইপর্বের ম্যাচে ব্রাজিলের বিপক্ষে মাঠে নামবে চিলি। এরই মধ্যে ম্যাচটি নিয়ে নানা ধরনের গুঞ্জনের ডালপালা মেলতে শুরু করেছে। শোনা যাচ্ছে, চিলিয়ানদের ম্যাচটি ছেড়ে দেবে পাঁচবারের বিশ্ব চ্যাম্পিয়নরা। কিন্তু কেন? এর উত্তর অনুসন্ধানে আমাদের একটু সাবির্ক পরিস্থিতি পর্যালোচনা করতে হবে।এ মুহূর্তে ল্যাতিন আমেরিকা অঞ্চলের পয়েন্ট তালিকায় সবার উপরে রয়েছে ব্রাজিল। দ্বিতীয় স্থানে রয়েছে উরুগুয়ে, তিনে চিলি। চতুর্থ কলম্বিয়া, পঞ্চম পেরু, ষষ্ঠ আর্জেন্টিনা ও সপ্তম স্থানে রয়েছে প্যারাগুয়ে।

এরই মধ্যে রাশিয়া বিশ্বকাপে খেলা নিশ্চিত করেছে ব্রাজিল। দুইয়ে থাকা উরুগুয়েরও খেলা প্রায় নিশ্চিত। তবে বাকি ৫ দল এখনো ২০১৮ বিশ্বকাপ খেলার টিকিট পায়নি।ব্রাজিলের বিপক্ষে জিতলে সরাসরি বিশ্বকাপে খেলবে চিলি। হারলে ছিটকে যাবে বিশ্বকাপ থেকে। স্বাভাবিক কারণেই ম্যাচটি সানচেজ-ভিদালদের জন্য বাঁচা-মরা হয়ে দাঁড়িয়েছে। শুধু চিলির জন্য নয়, ম্যাচটি কলম্বিয়া, পেরু, আর্জেন্টিনা ও প্যারাগুয়ের জন্যও বাঁচা-মরার হয়ে উঠেছে।ওই ম্যাচে চিলি হারলে দারুণভাবে উপকৃত হবে আর্জেন্টিনা। অবশ্য শেষ ম্যাচে ইকুয়েডরকে হারাতে হবে মেসিদের। সেই ম্যাচে স্বাগতিকদের হারাতে পারলে এবং সানচেজরা ব্রাজিলের কাছে হেরে গেলে সরাসরি বিশ্বকাপে খেলবে আলবিসেলেস্তেরা। প্রশ্নটা উঠেছে একে ঘিরেই।ফুটবল ইতিহাসে দুই চির-প্রতিদ্বন্দ্বী দল ব্রাজিল ও আর্জেন্টিনা। নানা রাজনৈতিক ও কূটনৈতিক কারণেও দুই দেশের মধ্যে শত্রুভাব বিরাজমান। প্রশ্নটা হচ্ছে, চিরশত্রুরা উপকৃত হোক- নিশ্চয়ই তা চাইবেন না ব্রাজিলিয়ানরা। অধিকন্তু বিশ্বকাপে চলে গেছে তারা। এ ম্যাচ থেকে নেইমারদের হারানোর কিছু নেই।

মূলত এ কারণেই সাও পাওলোতে বাংলাদেশ সময় পরশু ভোরে হতে যাওয়া ম্যাচটিকে ঘিরে নানা কানাঘুষা শুরু হয়েছে।অনেকে বলছেন, ম্যাচটা চিলির মতো গুরুত্ব দিয়ে খেলবে না ব্রাজিল (কারণ, আর্জেন্টিনা যেন বিশ্বকাপে খেলতে না পারে)।বিশ্বকাপের দল গড়ার লক্ষ্যে এ ম্যাচে পরীক্ষা-নিরীক্ষা চালাতে পারেন কোচ তিতে। নেইমার-কুতিনহোদের জায়গায় বাজিয়ে দেখতে পারেন অন্যদের।তবে ব্রাজিল কিংবদন্তি তোস্তাও ও চিলি গোলরক্ষক ক্লদিও ব্রাভো এসব কথাবার্তার সঙ্গে মোটেও একমত নন।  ১৯৭০ বিশ্বকাপজয়ী তোস্তাও বলেন, চিলিকে ‘ছেড়ে দিয়ে’ চিরশত্রু আর্জেন্টিনার ক্ষতি করার কোনো মানসিকতা ব্রাজিলের নেই। দেশটির সঙ্গে আমাদের শত্রুতা পুরনো-তা সবাই জানেন। তবে আমি নিশ্চিত, ব্রাজিল কোনোভাবেই চিলিকে সাহায্য করবে না। নিজেদের জন্যই খেলবে। জয়ের জন্য মাঠে নামবে। হয়তো পরীক্ষা-নিরীক্ষার জন্য দু’একটা পরিবর্তন আসবে।এরকম বাতাসে ভাসা কথাবার্তাকে একদমই উড়িয়ে দিয়েছেন ব্রাভো। তিনি বলেন, আমাদের সাহায্য করবে বলে এরকম কোনো চুক্তি তো ওরা করেনি। ব্রাজিল আমাদের কেন ছাড় দেবে? মনে রাখতে হবে, এটা তাদের শেষ ম্যাচ। জয়ের ধারা থেকে নিশ্চয়-বের হতে চাইবে না।ব্রাজিলের দয়ায় নয়, নিজেদের সামর্থ্যেই প্রবল বিশ্বাস চিলি অধিনায়কের। তার মতে, ব্রাজিলকে হারানোর মতো ভালো খেলোয়াড় আমাদের আছে। আমরা সেরাটা দিতে পারলে মাঠে ফল পাওয়া যাবেই।

About The Author

Related posts

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *