Select your Top Menu from wp menus
বুধবার, ১৩ই ডিসেম্বর ২০১৭ ইং ।। রাত ১১:০২

জয় দিয়ে বিপিএলের প্রথম পর্ব শেষ করল টাইটান্সরা

রায়হান কবির,স্বদেশ নিউজ ২৪.কমঃ পড়ন্ত বিকেলে কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্সের বিপক্ষে ম্যাচটা ছিল নিয়ম রক্ষার। কারণ আগেই নিশ্চিত হয়েছে শেষ চার। কিন্তু সেখানেও জয় খুলনা টাইটান্সের। চলমান বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগের (বিপিএল) প্রথম পর্বে মঙ্গলবারই ছিল মাহমুদউল্লাহ রিয়াদদের শেষ ম্যাচ। আগের ম্যাচে রংপুরের বিপক্ষে হেরে এই ম্যাচে ১৪ রানের জয় তুলে নিল তারা। আর বোনাস হিসেবে পেল র‍্যাংকিংয়ের তিন থেকে দুই নম্বরে ওঠার প্রাপ্তি।

মিরপুর শেরে বাংলা জাতীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামে খুলনার দেওয়া ১৭৫ রানের লক্ষ্য জয় করতে নেমে সাত উইকেট হারিয়ে ১৬০ রান তুলতেই শেষ হয় নির্ধারিত ২০ ওভার। যদিও ম্যাচ হেরেও শীর্ষে কুমিল্লা।  এদিন দলীয় এক রানের মাথায় প্রথম ওপেনার সলোমন মিরকে হারিয়ে খানিকটা চাপে পড়ে ভিক্টোরিয়ান্সরা। কিন্তু সেটা ভালই সামলেছেন অধিনায়ক ওপেনার তামিম ইকবাল। তার ব্যাটে আশার আলো দেখতে শুরু করে কাগজে-কলমে টুর্নামেন্টের  সবচেয়ে শক্তিশালী দলটি। ইমরুল কায়েসকে নিয়ে গড়েন ৬৩ রানের গুরুত্বপূর্ণ জুটি। ইমরুল ২০ রানে আউট হলে আবারও চাপে পড়ার ইঙ্গিত দেয় কুমিল্লা। দলীয় ৯০ রানের মাথায় আউট হন তামিম। তার করা ৩৬ রানের ইনিংসটিই দলের পক্ষে সর্বোচ্চ ব্যক্তিগত রান। এরপর ইংলিশ ক্রিকেটার জস বাটলার দেয়াল তৈরির চেষ্টা করলেও, ব্যর্থ হয়েছেন।

মিডল অর্ডারে কুমিল্লার পাকিস্তানি অলরাউন্ডার শোয়েব মালিক চমক দিতে থাকেন খুলনাকে। মাত্র ২৩ বলে খেলেন ঝড়ো ৩৫ রানের ইনিংস। ছিল  একটি চার ও তিনটি ছক্কা। মোহাম্মদ ইরফানের বলে শোয়েব আউট হলে, দলকে টেনে তোলার চেষ্টা করেছিলেন ইউন্ডিজ অলরাউন্ডার মারলন স্যামুয়েলস (২৫) ও রাকিবুল হাসান (১৭)। কিন্তু সুবিধা করতে পারেননি। তার আগেই শেষ হয় নির্ধারিত ২০ ওভার। অপরাজিত থাকেন স্যামুয়েলস ও মেহেদী হাসান রানা।

বল হাতে খুলনার আবু জায়েদ রাহী ও বেনি হাওয়েল দুটি করে উইকেট নিয়েছেন। অধিনায়ক মাহমুদউল্লাহ, ক্রেইগ ব্রাথওয়েট ও মোহাম্মদ ইরফান নিয়েছেন একটি করে উইকেট।

এর আগে টসে জিতে আগে ব্যাট করতে নামা খুলনা টপ অর্ডারের সফলতায় বড় রান সংগ্রহের দিকে এতোতে থাকে। দুই ওপেনার মাইকেল ক্লিঞ্জার ও নাজমুল হোসেন শান্ত মিলে গড়েন ৫৫ রানের জুটি। ২১ বলে ৩৫ রানের ঝড় তোলা ইনিংস খেলে আউট হন শান্ত। এরপর ক্লিঞ্জার ২৯ রানে ও মাহমুদউল্লাহ ২৩ রান করে আউট হয়েছেন। মিডল অর্ডারেও শক্ত অবস্থানে ছিল খুলনা। ২১ বলে ৩৫ রানের ইনিংস খেলা আরিফুল হক অনেকখানিক এগিয়ে দিয়েছেন খুলনা টাইটান্সকে। ১২ বলে ২২ রান করা ক্রেইগ ব্রাথওয়েটও যোগ দেন আরিফুলের সঙ্গে। দুজনে মিলে গড়েন ৪৭ রানের জুটি।

বল হাতে কুমিল্লার আল আমিন হোসেন সর্বোচ্চ তিনটি উইকেট নিয়েছেন। এছাড়া সলোমন মির ও শোয়েব মালিক একজন করে খুলনার ব্যাটসম্যানকে ফিরিয়েছেন।

About The Author

Related posts

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *