Select your Top Menu from wp menus
শুক্রবার, ১৯শে জানুয়ারি ২০১৮ ইং ।। রাত ১:৩৮

কিভাবে দূর করবেন অনিদ্রা

রায়হান কবির, স্বদেশ নিউজ২৪.কম:সারাদিন ক্লান্ত থাকার পর হাজারো চেষ্টা করে ঘুমাতে পারেন না অনেকে। যেখানে একজন প্রাপ্তবয়স্ক মানুষের ৮ থেকে ৯ ঘণ্টা ঘুমের প্রয়োজন, সেখানে হয়তো বা কেউ কেউ ২-৩ ঘণ্টা ঘুমাচ্ছে। যার কারণে শরীরে ক্লান্তি, দুর্বলতা এবং মেজাজ খিটখিটে ভাব চলে আসে। মূলত এটি একটি রোগ যার নাম ইনসমনিয়া। এই রোগ দূর করার জন্য অনেকেই ওষুধ নেন যা আপনার স্বাস্থ্যের জন্য ব্যাপক ক্ষতিকর।তবে কিছু নিয়ম মেনে চললেই আপনি মুক্তি পেটে পারেন এই সমস্যা থেকে। জেনে নিন কি সেগুলো—

•       সময় মেনে চলুন: প্রতিদিন নির্দিষ্ট সময় ঘুমানোর অভ্যাস করুন এবং নির্দিষ্ট সময়ে উঠে পরুন। এই নিয়ম মেনে চললে আপনার মস্তিষ্ক নিজের থেকে আপনাকে ঘুমানোর তাগিদ দিবে।

•       মোবাইল ও টিভি দেখা পরিহার করুন: রাতে ঘুমাতে যাওয়ার সময় টিভি দেখবেন না কিংবা মোবাইল চালাবেন না। এতে ঘুম কেটে যায় এবং চোখে চাপ পরে।

•       দুধ খান: রাতে ঘুমাতে যাওয়ার আগে এক গ্লাস গরম দুধ খেয়ে নিন। এটি আপনাকে রিলাক্স রাখবে এবং ঘুমাতে সাহায্য করবে।

•       দুঃশ্চিন্তা ছাড়ুন: রাতে ঘুমানোর সময় যেকোনো বিষয় নিয়ে দুঃশ্চিন্তা করবেন না কিংবা মেজাজ খারাপ নিয়ে ঘুমাতে যাবেন না। মস্তিষ্কের উত্তেজনা আপনাকে জাগিয়ে রাখবে। এতে স্ট্রোকের ঝুঁকি বেড়ে যায়।

•       ভালো চিন্তা করুন: ঘুমানোর সময় কি কি করতে পারলেন না সেগুলো না ভেবে কি কি করতে পারলেন সে বিষয়ে ভাবুন। নিজের ও প্রিয়জনের ব্যাপারে ভালো ভালো চিন্তা করুন।

•       গান শুনুন: রাতে ঘুমানোর সময় হালকা আওয়াজে আপনার পছন্দের গান গুলো শুনুন।

•       ওষুধ নিবেন না: ঘুম না এলে ওষুধ খাবেন না। এতে আপনি সহজেই ওষুধে আসক্ত হয়ে পড়বেন। পরবর্তীতে যা আপনার কিডনি এবং হার্টে প্রভাব ফেলবে।

•       ব্যায়াম: চোখের জন্য কিছু ব্যায়াম রয়েছে যেগুলো ঘুমানোর আগে করলে আপনি সহজেই ঘুমিয়ে পরতে পারবেন।

•       বই পড়ুন: রাতে ঘুম না এলে বই পড়ুন। এতে এক সময় আপনার চোখ ক্লান্ত হবে এবং ঘুম চলে আসবে। তবে ইনসমনিয়ের মাত্রা বেড়ে গেলে অবশ্যই ডাক্তারের পরামর্শ নিবেন।

About The Author

Related posts

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *