শিরোনাম

রয়ে রঙ্গিন ইংলিশরা, টাইগারদের গড়তে হবে ইতিহাস

| ০৮ জুন ২০১৯ | ৭:৩৭ অপরাহ্ণ

রয়ে রঙ্গিন ইংলিশরা, টাইগারদের গড়তে হবে ইতিহাস

গড়তে হবে ইতিহাস। যে ইতিহাসটা রচনা করেছিল আয়ারল্যান্ড বাংলাদেশের মাটিতে ২০১১ সালে। সেবার এই ইংল্যান্ডের বিপক্ষে ৩২৩ রান চেজ করে জয় ছিনিয়ে নিয়েছিল আইরিশরা। এটি বিশ্বকাপে সর্বোচ্চ রান তাড়া করে জয়ের রেকর্ড। আজ বাংলাদেশের বিপক্ষে ইংল্যান্ড দাঁড় করিয়েছে ৩৮৭ রানের পাহাড়সম লক্ষ্য।

ইংলিশ ওপেনার জেসন রয় খেললেন ১৫৩ রানের অনবদ্য এক ইনিংস। মাত্র ১২১ বলের সেই ইনিংসে ছিলো ১৪টি চার ও ৫ টি ছয়ের মার। রয়ের ঝড়ের সঙ্গে অর্ধশতকের দেখা পেয়েছে আরেক ওপেনার জনি বেয়ারেস্ট। তিনি করেছেন ৫১।
এছাড়াও অর্ধশতকের দেখা পেয়েছেন জশ বাটলার (৬৪)। এই তিন জনের ব্যাটে ভর করে ৬ উইকেট হারিয়ে ৩৮৬ রানের সংগ্রহ পেয়েছে স্বাগতিক ইংল্যান্ড। বাংলাদেশের জয়ের জন্য চাই ৩৮৭ রান।

আজ শুরু থেকেই নিষ্প্রভ ছিলো টাইগার বোলাররা। উইকেটের দেখা পেতে বেশ বেগ পেতে হয় তাদের। ২টি করে উইকেট পেয়েছেন সাইফউদ্দীন ও মেহেদী মিরাজ। আর ১টি করে উইকেট পেয়েছেন মোস্তাফিজুর রহমান ও মাশরাফি বিন মর্তুজা।

টসে জিতে ইংল্যান্ডকে ব্যাটিংয়ে পাঠায় বাংলাদেশ। কার্ডিফে বাংলাদেশ আজকের ম্যাচ খেলছে অপরিবর্তিত একাদশে। আগের দুই ম্যাচের মতো দলের বাইরে রয়েছেন লিটন দাস, রুবেল হোসেন, আবু জায়েদ চৌধুরী, সাব্বির রহমান। দুই ম্যাচে মিশ্র অভিজজ্ঞতা পায় টাইগাররা। দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে পায় জয়। আর নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে তীরে এসে তরী ডুবায় তারা। অপরদিকে স্বাগতিক ইংল্যান্ডের যাত্রাটাও একই। তারা প্রথম ম্যাচে জয় দেখে ওই দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে। আর হারের স্বাধ পাকিস্তানের বিপক্ষে।

বাংলাদেশ একাদশ
তামিম ইকবাল, সৌম্য সরকার, সাকিব আল হাসান, মুশফিকুর রহীম, মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ, মোহাম্মদ মিঠুন, মোসাদ্দেক হোসেন সৈকত, মেহেদী হাসান মিরাজ, মাশরাফি বিন মর্তুজা (অধিনায়ক), মোস্তাফিজুর রহমান এবং সাইফউদ্দীন।

ইংল্যান্ড একাদশ
জেসন রয়, জনি বেয়ারেস্ট, জো রুট, ইয়ন মরগ্যান (অধিনায়ক), বেন স্টোকস, জস বাটলার (উইকেটরক্ষক), ক্রিস ওকস, আদিল রশিদ, লিয়াম প্লাঙ্কেট, জোফরা আর্চার, মার্ক উড।

এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিয়ে করলেন নাবিলা

২৭ এপ্রিল ২০১৮

ফেইজবুকে আমরা

  • পুরনো সংখ্যা

    SatSunMonTueWedThuFri
    22232425262728
    2930     
           
      12345
    27282930   
           
          1
           
          1
    9101112131415
    30      
         12
           
          1
    2345678
    30      
       1234
    262728293031 
           
         12
           
      12345
    2728293031  
           
    891011121314
    2930     
           
        123
           
        123
    25262728   
           
    28293031   
           
          1
    2345678
    9101112131415
    3031     
          1
    30      
      12345
    272829    
           
        123
           
    28