স্লো মোবাইলফোন ফাস্ট করার সহজ কিছু উপায়

মোবাইলফোন কেনার কিছুদিন পরেই কমে গেছে স্পিড? দাম দিয়ে মোবাইলফোন কিনে চিন্তায় আছেন। চিন্তার কারণ নাই, পুরানো মোবাইলফোন নতুন মোবাইলের মতো দ্রুতগতি সম্পন্ন হয়ে উঠতে পারে কিছু পদ্ধতি অবলম্বন করলে।

যা করবেন-
অ্যান্ড্রয়েড থেকে ইন্টারন্যাল স্টোরেজ ফ্রি করুন
ইন্টারন্যাল স্টোরেজ ক্যাপাসিটি শেষ হয়ে গেলে মোবাইলফোন স্লো হয়। এজন্য ইন্টারন্যাল স্টোরেজ ফ্রি করতে হবে। মোবাইলে অপ্রয়োজনীয় অ্যাপ আনইনস্টল করে ইন্টারন্যাল স্টোরেজ ফ্রি করা যায়। এছাড়াও হোয়াটসঅ্যাপে আসা মেসেজ ও ভিডিও ডিলিট করলেও স্টোরেজ ফ্রি হয়।
ফোন রিসেট করুন
প্রযুক্তি সংক্রান্ত তথ্য অনুসারে, চার মাসের ব্যবধানে ফোন রিসেট করতে থাকা দরকার। অ্যাপের ক্যাশে ক্লিয়ার করলে সেটিংসের স্টোরেজ অপশনে গিয়ে পুরানো ডেটা ডিলিট করা যেতে পারে।
ফোন রিস্টার্ট করতে হবে ফোন ফাস্ট করার কার্যকরী উপায় রিস্টার্ট বলে মনে করা হয়। ফোন স্লো হলে শেষপর্যন্ত অ্যান্ড্রয়েড ফোনকে একবার রিস্টার্ট অবশ্যই করে দেখা দরকার। এতে অ্যান্ড্রয়েড সিস্টেমে টেম্পোরারি ফাইলগুলো ডিলিট হওয়ার সঙ্গে সঙ্গে ফোনের মেমোরি ক্লিন হয়।
ফাস্ট মাইক্রো এসডি কার্ডের ব্যবহার
সাধারণ ও সস্তার এসডি কার্ডের বদলে ফাস্ট মাইক্রো এসডি কার্ডের ব্যবহার করা উচিত। ইন্টারন্যাল স্টোরেড থেকে ফটো ও ভিডিও সরিয়ে ক্লাউড বা গুগলে রাখা যেতে পারে। হোম স্ক্রিনেও অপ্রয়োজনীয় ডিটেইলস থাকে। এগুলো সরালেও ফোনের গতি দ্রুত হয়। এছাড়াও সেটিংসে গিয়ে অ্যানিমেশন অফ বোতাম প্রেস করুন। ক্লিনার অ্যাপের ব্যবহার করবেন না। হার্ড রিসেটের বোতাম প্রেসে আগে ব্যাকআপ অবশ্যই নিন।
সূত্র- এবিপি আনন্দ।

Leave a Reply

Your email address will not be published.