Select your Top Menu from wp menus
বুধবার, ১৩ই ডিসেম্বর ২০১৭ ইং ।। রাত ১১:০১

ঢাকা ছাড়লেন পোপ ফ্রান্সিস

তিন দিনের সফর শেষে ঢাকা ছাড়লেন পোপ ফ্রান্সিস। আজ শনিবার বিকেল ৫টা ১০মিনিটে ভ্যাটিকানের উদ্দেশ্যে ফ্লাইটে ওঠেন তিনি। হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে পোপকে বিদায় জানান পররাষ্ট্রমন্ত্রী এএইচ মাহমুদ আলী, আইনমন্ত্রী আনিসুল হক এবং পররাষ্ট্র সচিব মো. শহীদুল হক। এ সময় তাকে গান সেলুট দিয়ে সম্মান প্রদর্শন করা হয়।
এর মধ্য দিনে বাংলাদেশে তিন দিনের সফর সম্পন্ন করলেন ক্যাথলিক খ্রিস্টানদের ধর্মগুরু পোপ ফ্রান্সিস। ৩০শে নভেম্বর বিকেল তিনটায় ঢাকায় পৌছান তিনি। সেখান থেকে সাভারে স্মৃতিসৌধে শহীদদের প্রতি শ্রদ্ধা নিবেদন করেন। পরে ধানমণ্ডিতে বঙ্গবন্ধু স্মৃতি জাদুঘর পরিদর্শন করেন। সন্ধ্যায় বঙ্গভবনে প্রেসিডেন্ট আবদুল হামিদের সঙ্গে একান্ত বৈঠকের পর দরবার হলে কুটনীতিকদের উপস্থিতিতে বক্তব্য রাখেন তিনি।
সফরের দ্বিতীয় দিন গতকাল ভ্যাটিকান দূতাবাসে যান পোপ ফ্রান্সিস। বিকেলে সেখানে গিয়ে পোপের সঙ্গে সৌজন্য সাক্ষাত করেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। এসময় পোপ ফ্রান্সিসকে স্যুভেনির হিসেবে নৌকা উপহার দেন প্রধানমন্ত্রী। রাতে আন্তধর্মীয় এক সভায় কক্সবাজার থেকে নিয়ে আসা ১৬ রোহিঙ্গার সঙ্গে আলাপ করেন পোপ। এ সময় সফরে প্রথমবারের মতো তার মুখে উচ্চারিত হয় রোহিঙ্গা নাম। মিয়ানমার ও পরে বাংলাদেশ সফরে সতর্কতার সঙ্গে রোহিঙ্গা শব্দটি এড়িয়ে যাচ্ছিলেন বলে সমালোচনা হচ্ছিল। বিশ্বের গণমাধ্যমগুলোতে পোপের মুখে রোহিঙ্গা নাম আসার বিষয়টি শিরোনাম হয়।
আজ সফরের শেষ দিন, মাদার টেরেসা হাউজ, তেজগাঁওস্থ প্রাচীন রোজারি চার্চে খ্রিস্টান যাজকদের এক জমায়েতে বক্তব্য রাখেন পোপ। প্রত্যেককে একে অপরের প্রতি সহিঞ্চু হতে এবং পরনিন্দা থেকে বিরত থাকার আহ্বান জানান তিনি। পরে দুপুরে নটরডেম কলেজে তরুণদের সঙ্গে মতবিনিময় করেন। এর মধ্য দিয়ে শেষ হয় পোপের তিন দিনের সফরসূচী।
স্বাধীন বাংলাদেশে সফরে আসা দ্বিতীয় পোপ হলেন পোপ ফ্রান্সিস। এর আগে ১৯৮৬ সালে বাংলাদেশে এসেছিলেন পোপ দ্বিতীয় জন পল।

About The Author

Related posts

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *