শিরোনাম

বগুড়া-২ জাপার এমপি সক্রিয় বিএনপির আলোচনায় মান্না

| ১২ মার্চ ২০১৮ | ১:৩০ অপরাহ্ণ

বগুড়া-২ জাপার এমপি সক্রিয় বিএনপির আলোচনায় মান্না

এম নজরুল ইসলাম (বগুড়া) স্বদেশ নিউজ ২৪.কমঃ নির্বাচনী হাওয়া বইতে শুরু করেছে। সাধারণ মানুষের পাশাপাশি ক্ষমতাসীন আওয়ামীলীগ, জাতীয় সংসদের প্রধান বিরোধীদল জাতীয় পার্টি, বিএনপিসহ বিভিন্ন রাজনৈনিতক সংগঠনের নেতাকর্মীদের চাঙ্গা করতে তৎপর হয়ে উঠেছেন সম্ভাব্য প্রার্থীরা। তবে এবার আলোচনায় রয়েছেন তরুন নেতারা।
নির্বাচনী এলাকায় ব্যাপক উন্নয়ন করায় আগামী একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে লাঙ্গল প্রতীকে নির্বাচিত হয়ে আবারো হ্যাটট্রিক করতে চান বগুড়া-২ আসনের বর্তমান সংসদ সদস্য ও বগুড়া জেলা জাতীয় পার্টির সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা আলহাজ্ব শরিফুল ইসলাম জিন্নাহ এমপি। জাপাসহ অঙ্গসহযোগী সংগঠনের কার্যক্রম, তৃনমূলের নেতাকর্মীদের সাথে যোগাযোগ রাখা, ভোটারদের দেয়া প্রতিশ্রুতি বাস্তবায়ন ও ব্যাপক উন্নয়নের কারণে জাপার এই সাংসদ রয়েছেন সক্রিয় অবস্থানে। বেড়েছে জনপ্রিয়তাও।
দৈনিক সবুজ নিশান’ প্রতিবেদকের কাছে শরিফুল ইসলাম জিন্নাহ এমপি নিজেকে জাতীয় পার্টির একক প্রার্থী দাবি করলেও এই আসনে মনোনয়ন চান বগুড়া জেলা জাতীয় পার্টির সাবেক ধর্মীয় সম্পাদক এ্যাডভোকেট ময়নুল ইসলাম।
এদিকে, একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনকে সামনে রেখে আলোচনায় এসেছেন নাগরিক ঐক্যের আহবায়ক ও ডাকসুর সাবেক ভিপি মাহমুদুর রহমান মান্না। তিনি জাতীয় পর্যায়ে রাজনীতি করলেও এখানকার সন্তান। আগামী নির্বাচনে তিনি এই আসন থেকে লড়তে পারেন। তিনি বিএনপির সঙ্গে জোটবদ্ধ হয়ে নির্বাচন করলে এই আসন ছাড় পাবেন বলেও শোনা যাচ্ছে।
দৈনিক সবুজ নিশান’ প্রতিবেদকের সাথে আলাপকালে মাহমুদুর রহমান মান্না জানান, শিবগঞ্জের মানুষ তাকে নির্বাচনে চায়। তিনি কোন আসন থেকে নির্বাচন করবেন সে বিষয়ে এখনো পুরোপুরি সিদ্ধান্ত নেননি। আসছে নির্বাচন নিরপেক্ষ হলে তিনি যে আসন থেকেই নির্বাচন করুক, জনগণ তাকেই ভোট দিয়ে বিজয়ী করবে বলেও দাবি করেন জাতীয় পর্যায়ের এই নেতা।
বগুড়া-২ আসনে এখন পর্যন্ত আওয়ামী লীগের আটজন সম্ভাব্য প্রার্থীর নাম শোনা যাচ্ছে। তারা হলেন- সাবেক মন্ত্রী মোজাফফর হোসেন বিএমএ, পৌরসভার মেয়র ও সিনিয়র সাংবাদিক তৌহিদুর রহমান মানিক, শিবগঞ্জ উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আজিজুল হক, সাধারণ সম্পাদক মোস্তাফিজার রহমান, ডা. রেজাউল আহসান জুয়েল, বিশিষ্ট ব্যবসায়ী আকরাম হেসেন, জেলা পরিষদ সদস্য ও জেলা কৃষকলীগের সহ সভাপতি আব্দুল করিম, সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান আবুল কাশেম ফকির। এদের মধ্যে ভোটার ও নেতাকর্মীদের আলোচনায় রয়েছেন পৌরসভার মেয়র তৌহিদুর রহমান মানিক।
অন্যদিকে, বিএনপির সম্ভাব্য প্রার্থী হিসেবে কয়েকজন নেতাকে নিয়ে নির্বাচনী এলাকায় আনাগোনা চলছে। দশম জাতীয় সংসদ নির্বাচনে বিএনপি অংশ না নেয়াসহ বিগত বছরগুলোতে তৃণমূল কর্মীদের সঙ্গে দূরত্ব থাকলেও এখন সেই দূরত কমানোর চেষ্টা করছেন এসব নেতা। নিয়মিত নেতাকর্মীদের খোঁজখবর রাখছেন তারা। এই আসনে বিএনপির সম্ভাব্য প্রার্থীর তালিকায় আছেন সাবেক এমপি এ্যাডভোকেট একেএম হাফিজুর রহমান, বগুড়া জেলা বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক এম আর ইসলাম স্বাধীন, জেলা বিএনপির সাংগাঠনিক সম্পাদক মীর শাহে আলম, পৌরসভার সাবেক মেয়র মতিউর রহমান ও উপজেলা বিএনপির সভাপতি কামাল সেলিম।
অপরদিকে, দলীয় নিবন্ধন না থাকলেও বগুড়া-২ আসনে জামায়াতে ইসলামীর বেশ প্রভাব রয়েছে। যেকোনো প্রতীকে জামায়াতের প্রার্থী লড়তে পারেন বলে জানা গেছে। সেক্ষেত্রে শিবগঞ্জ উপজেলা চেয়ারম্যান আবু নসর মো. আলমগীর হোসাইন আলোচনায় রয়েছেন।

 

এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিয়ে করলেন নাবিলা

২৭ এপ্রিল ২০১৮

ফেইজবুকে আমরা

  • পুরনো সংখ্যা

    SatSunMonTueWedThuFri
          1
    9101112131415
    23242526272829
    30      
         12
           
          1
    2345678
    30      
       1234
    262728293031 
           
         12
           
      12345
    2728293031  
           
    891011121314
    2930     
           
        123
           
        123
    25262728   
           
    28293031   
           
          1
    2345678
    9101112131415
    3031     
          1
    30      
      12345
    272829    
           
        123
           
    28